মন মানসিকতা

মন মানসিকতা
আমার থেকে ১৮ বছরের বড় স্বাগত।আর তার সাথেই আজ আমার বিয়ে হয়েছে। স্বাগতর চুল এবং দাঁড়িতে সাদা রঙ ধরেছে।আমাদের জুটি দেখে বেশির ভাগ চাচী,ফুফী,মহিলারাই নাক সিটকাচ্ছে। স্বাগত সবার ফিসফিস করে কথা বলার ভঙ্গিমা গুলো দেখেও না দেখার ভান করে আছে।
আমার বান্ধবীরা এসে আমাকে বলে যাচ্ছে,ছিঃ কায়নাত।তুই শেষমেস কিনা এমন বুড়োকে বিয়ে করলি? দুনিয়া থেকে কি সব ইয়াং ছেলেরা উঠে গিয়েছিলো? বিয়ের পর রাস্তায় বেড়ুলেই দেখি কিছু মেয়ে তাদের স্বামীকে চিমটি কেটে ইশারায় চোখ দিয়ে আমাদের দেখাচ্ছে। হয়তো তারাও দেখাচ্ছে আমার বয়স্ক বরকে। বান্ধবীরা ওদের বরকে নিয়ে টিকটক ভিডিও আপলোড করেছে দেখে আমিও কয়েকটা ভিডিও আপলোড করলাম স্বাগতকে নিয়ে। আর কয়েকটা পিক আপ্লোড করলাম আমার ফেসবুক আইডিতে। আর কোথায় যাবা,হয়ে গেলো ভাইরাল সব ভিডিও আর পিক। ক্যাপশন দিয়ে মানুষ পোস্ট করে যাচ্ছে। ক্যাপশন,১)বুড়া চাচা গোল দিছে,
২)বুড়া চাচার পাওয়ার আছে,
৩)মেয়ের বেশি ভাব ছিলো তাই পরিবার বুইড়া গলায় ঝুলায় দিছে।
৪)বুইড়ার শখ কত এই বয়সে মেয়ের বয়সি একটা মেয়েকে বিয়ে করেছে।
৫)পুরাই বাপ মেয়ে লাগছে অথচ তারা হাজবেন্ড ওয়াইফ।
আর সেখানে বাজে বাজে কমেন্ট তো আছেই।নারী পুরুষ ধুমছে মজা নিচ্ছে। আবার কিছু ভদ্রলোক ভদ্র মহিলা কমেন্ট করেছেন যে তারা সুখী হলে আমাদের কেন এত মাথা ব্যথা? বলি কি,আমার তো আমার বরকে নিয়ে কোন প্রবলেম নেই। তাহলে এদের কেন এত সমস্যা? ভাই আপু তোমাদের কেন এত সমস্যা?
আমার বর বয়স্ক বলে আমিতো লজ্জা পাইনা।পেলে তো আর তাকে নিয়ে ছবি তুলে আপলোড করতাম না।
কই আমাদের মধ্যে প্রায় অনেকেরই বাবা মায়ের বয়সের ডিফারেন্স আছে।আমাদের দাদা দাদী,নানা নানী
তারাওতো খুব শান্তিতে সংসার করে যাচ্ছে। তাদের নিয়েতো এমন বাজে মন্তব্য করছেনা কেউ। তাহলে আমাদের নিয়ে হচ্ছে কেন? এখন বলবেন তারা তো আর পিক আপ্লোড দিচ্ছেনা,টিকটক বানাচ্ছেনা।আপনারা করছেন এগুলো তাই শুনছেন। ওহ তাহলে আপনারা যারা ইয়াং কাপল আছেন তারাই এসব করতে পারবেন? আমাদের মন বলে কিছু নাই? আমি যদি আমার বয়স্ক বরের সাথে ছবি না তুলে,বয়স্ক বরের সাথে টিকটক না বানিয়ে ইয়াং একজন কে ধরে এনে পিক তুল্লে ভালো বলতেন বুঝি?
আমার বরের ফেসবুক আইডি থাকায় ভাইরাল পিক এবং ক্যাপশন গুলো তিনিও দেখলেন। কষ্ট পেয়েও মুখে হাসির রেখা টেনে আমাকে বললেন, তুমি আমাকে নিয়ে খুশি তো? আমরা হ্যাপী আছিতো? তাহলে কারো কথায় মন খারাপ না করে যাও নামাজে যাও। আমিও নামাজ টা পড়ে নেই। আযান দিচ্ছে। মনে মনে ভাবতে লাগলাম,বয়স টা কি? মন টাই আসল। যার মন মানসিকতা সুন্দর সেই আসল সুন্দর। মন মানসিকতা পাল্টান,কাউকে আঘাত দেয়ার আগে একবার ভাবুন,তার জায়গায় আপনি থাকলে কতটা আঘাত পেতেন।

গল্পের বিষয়:
ছোট গল্প

Share This Post

আরও গল্প

সর্বাধিক পঠিত