সঠিক পথ

সঠিক পথ

দুপুরের খাবার খেয়ে একটু বিশ্রাম নিচ্ছিলাম। চোখটা একটু লেগে গিয়েছিল।ঠিক তখনই হঠাৎ মনে হলো কেউ যেন ঘরের মধ্যে ঢুকছে। ভাবলাম, কে এলো একটু উঠে দেখি।কিন্তু যেই আমি উঠতে যাবো, তখনি মনে হলো যেন আমার পুরো শরীর যেন অবশ হয়ে আছে। আমি হাত নড়ানোর চেষ্টা করছি। কিন্তু একি? আমি আমার হাত নড়াতে পারছি না।আর পা ও নড়ছে না।অনেক চেষ্টা করছি। কিন্তু কিছুতেই কিছু হচ্ছে না। আমি তখন সবাইকে ডাকার চেষ্টা করলাম।কিন্তু আমার মুখটা তো খুলছেই না। তাহলে কি আমার জান নেওয়ার জন্য আযরাইল এল ? নানা তা কি করে হয়? আমি তো এখনো অনেক ছোট।কত পাপ করেছি। সওয়াব তো করার কোনো কাজ ই করিনি। তাহলে তো আমি পরকালে অনেক শাস্তি পাব। হে আল্লাহ! আমায় বাঁচাও। এসব কথা শুধু ভাবছি।আর হঠাৎ ই বুঝতে পারলাম যে আমার হাত, পা সব ই নড়াতে পারছি। আর আমি কথা ও বলতে পারছি। তখন আল্লাহর শুকরিয়া আদায় করলাম।আর ভাবলাম এখন থেকে সঠিক পথে চলব। আর আল্লাহর সন্তুষ্টি লাভের চেষ্টা করব।

* আসল কথা হলো, আমাদের মৃত্যু কখন হবে আমার কেউ বলতে পারব না। আর আমরা হয়তো ভাবলাম যে কাল থেকে সঠিক পথে চলা শুরু করব। কিন্তু আমরা হয়তো সেই আগামীকাল না ও পেতে পারি। আসুন, আমরা সঠিক পথে চলি।

গল্পের বিষয়:
ধর্মীয়

Share This Post

আরও গল্প

সর্বাধিক পঠিত